শীঘ্রই খুলছে কসবা সীমান্তহাট ॥ দু’দেশের এডিএম পর্যায়ের বৈঠক

0 1

রুবেল আহমেদ : কসবায় আগামী এক মাসের মধ্যে সীমান্ত হাটের যাবতীয় সমস্যা সমাধান করে সীমান্ত হাট খুলে দেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন দু‘দেশের পরিচালনা কমিটি। এ বিষয়ে মঙ্গলবার (৬ জুন) দুপুরে সীমান্ত হাটে দু’দেশের পরিচালনা কমিটির প্রতিনিধি দল এক বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত গ্রহন করেন।

সীমান্ত হাট খোলার খবরে হাটের ব্যবসায়ীদের মাঝে আনন্দ বিরাজ করছে। বৈঠক শেষে সীমান্ত হাটের ভগ্নদশা ও অবকাঠামোগত সমস্যাগুলো দ্রুত নিরসনের আশ্বাস দেন।

এর আগে বৈঠকে বাংলাদেশের পক্ষে ৭ সদস্য বিশিষ্ট কমিটির নেতৃত্ব দেন ব্রাহ্মণবাড়িয়া অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট হেলেনা পারভীন। অপরদিকে ৭ সদস্য বিশিষ্ট ভারতীয় প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেন সিপাহীজলা জেলার অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট জয়ন্ত দে।

বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের প্রেস ব্রিফিং করেন দুদেশের হাট পরিচালনা কমিটির সভাপতিগন। তারা জানান, আগামী ১৪ জুন দুদেশের ইঞ্জিনিয়ার এসে সীমান্তহাটের ক্ষতিগ্রস্থ অবকাঠামো দেখে পুননির্মানের কাজ শুরু করার বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবেন। আগামী এক মাসের মধ্যে সীমান্ত হাটের যাবতীয় সমস্যা সমাধান করে সীমান্ত হাট খোলে দেয়ার সিদ্ধান্তের কথা জানান তারা।

প্রসংগত, ২০১৫ সালের ১১ জুন কসবা সীমান্তের তারাপুর-কমলাসাগর সীমান্ত হাটটি ভার্চুয়ালী দু’দেশের প্রধানমন্ত্রী যথাক্রমে নরেন্দ্র মোদি ও শেখ হাসিনা আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করেন। মহামারী করোনায় ২০২০ সালের মার্চ মাসে বন্ধ হয়ে যায় এই হাট। দেশের অন্যান্য সীমান্তহাটগুলো খুলতে থাকায় এই হাটটি খোলে দেয়ার জন্য বাংলাদেশ ও ত্রিপুরার জনগনের মধ্যে আগ্রহ সৃষ্টি হয়। দীর্ঘ প্রায় সাড়ে তিন বছর বন্ধ থাকায় এর সীমানা বেড়া, অফিস দেয়াল ও ব্যবসায়ীদের শেডঘর নষ্ট হয়ে ঝোপঝাড়ে পরিণত হয়েছে।

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

Shares