পশুরহাটে বাড়ছে ক্রেতা, বাড়ছে দাম

0 0

প্রতিনিধি: ঈদের একদিন আগে বেচা-কেনায় জমে উঠেছে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় পশুরহাটগুলো। ক্রমশই মানুষের ভিড় বাড়ছে হাটগুলোতে।

তবে আগের দিনের চেয়ে বিক্রেতারা একটু বেশি দাম হাকছে বলে অভিযোগ ক্রেতাদের। মঙ্গলবার অন্নদা স্কুল মাঠে পশুর হাট ঘুরে দেখা গেছে সকাল থেকেই ক্রেতা বাড়ার সঙ্গে কিছুটা বাড়তে শুরু করেছে দামও। দাম কিছুটা বাড়লেও তা এখনও সহনীয় পর্যায়েই আছে বলেই মনে করছেন ক্রেতারা।

গত দুই দিন যাবৎ  হাটগুলোতে পশু বিক্রি কম হওয়ায় বিক্রেতাদের মাঝে হতাশা তৈরি হলেও ক্রেতা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে বাড়ছে প্রত্যাশা। দাম একটু বাড়লেও ক্রেতাদের মধ্যে রয়েছে উৎসবের আমেজ।  
গরু ব্যবসায়ীরা জানিয়েছেন গতদিনের চেয়ে ক্রেতা বেড়েছে। ১০টি গরু নিয়ে খানে এসেছেন পাবনার ব্যবসায়ী মজিবুর ইসলাম। তিনি জানান, সোমবার তার ১০টি গরু বিক্রি হয়ে গেছে। আজকের মধ্যে মধ্যে বাকি গরু বিক্রি করতে পারবেন বলে আশা তার। গত কয়েকদিন দাম না ওঠায় গরু বিক্রি করেননি মজিবুর। আজ একটু বেশি দাম ওঠায় বিক্রি করেছেন বলে জানান তিনি।

তার পাশেই আরেক এক গরু ব্যবসায়ী সাহাবুদ্দিন। তিনি জানান, যে গরু গতকাল (সোমবার) ৫০ হাজার টাকা বিক্রি করেছেন, আজ একই রকম গরু ১০ থেকে ১৫ হাজার টাকা বেশি দামে বিক্রি করতে পেরেছেন।আফসোস করে তিনি জানান, গত দুই দিন ৬টা গরু বিক্রি করে ফেলেছি, রেখে দিলে খরচ বাদ দিলেও ৮ থেকে ১০ হাজার টাকা বেশি লাভ হতো। তবে তার বাকি ১৫টি গরু বিক্রি করে ভালো লাভ থাকবে বলেই আশা করছেন সাহাবুদ্দিন।

বিক্রিতারদের মুখে হাসি ফুটলেও ক্রেতারা দাম বাড়ায় একটু চুপসে গেছেন। হাটগুলো ঘুরে ঘুরে গরু-ছাগলের দর-দাম করছেন। কান্দিপাড়া থেকে গরুরহাটে এসেছেন আব্দুল আজিজ। তিনি বলেন, ‘গতকাল আমার বন্ধুকে ৬০ হাজার টাকায় যে সাইজের গরু কিনে দিয়েছি, আজ সেই রকমের গরু ৮০ হাজার টাকা চাইছে। গতকাল গরু না কিনে ভুলই করেছি।’

তুলনামূলক ছোট গরুর ক্রেতা বাড়ায় দাম কিছুটা বাড়লেও বড় গরুর দাম এখনও রয়েছে স্থিতিশীল।

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.

Shares